বুধবার | ২১ ফেব্রুয়ারি ২০২৪
Cambrian

স্রোতে চাঁদপুর-শরীয়তপুর ফেরি চলাচলে বিঘ্ন, দুর্ভোগ

spot_img
spot_img
spot_img

ক্র্যাবনিউজ ডেস্ক
পদ্মা ও মেঘনা নদীতে পানি বেড়েছে। সেই সঙ্গে তীব্র হয়েছে নদীর স্রোত। এতে চাঁদপুর-শরীয়তপুর নৌপথে ফেরি চলাচলে বিঘ্ন হচ্ছে। এই নৌপথ পারি দিতে অতিরিক্ত পাঁচ কিলোমিটার পথ ঘুরে চলাচল করতে হচ্ছে ফেরিগুলোকে। ফেরি চলাচলে বিঘ্ন হওয়ায় শরীয়তপুরের ভেদরগঞ্জ উপজেলার আলুর বাজার ফেরিঘাট পারাপারে অপেক্ষায় আছে চার শতাধিক পণ্য ও যাত্রীবাহী যানবাহন।
বাংলাদেশ অভ্যন্তরীণ নৌ পরিবহন করপোরেশন (বিআইডব্লিটিসি) সূত্র জানায়, চাঁদপুর-শরীয়তপুর নৌপথে যানবাহন পারাপারের জন্য সাতটি ফেরি আছে। প্রতিটি ফেরি ২৪ ঘণ্টায় ৬ থেকে ৭টি ট্রিপ দেয়। ভেদরগঞ্জের আলুর বাজার ফেরিঘাট থেকে চাঁদপুরের হরিণা ফেরিঘাটে পৌঁছাতে এক ঘণ্টা সময় লাগে। প্রতিদিন ৪৫০ থেকে ৫০০ যানবাহন পারাপার হতো। ফেরি চলাচল বিঘ্ন ঘটায় এখন দুই ঘণ্টা সময় লাগছে। দিনে ২৫০ থেকে ৩০০টি যানবাহন পারাপার হচ্ছে।
সম্প্রতি পদ্মা সেতুর পিলারে ফেরির ধাক্কার ঘটনায় বাংলাবাজার-শিমুলিয়া নৌপথে পণ্যবাহী যানবাহন চলাচলে বিধিনিষেধ আরোপ করে নৌ পরিবহন মন্ত্রণালয়। ফলে চাঁদপুর-শরীয়তপুর নৌপথের আলুর বাজার ফেরিঘাটে গাড়ির চাপ বাড়তে থাকে। আর ফেরি চলাচলে বিঘ্ন ঘটায় ও পারাপারে দ্বিগুণ সময় লাগার কারণে আলুর বাজার ঘাটে গাড়ির জট সৃষ্টি হয়েছে।
খুলনা থেকে মাল নিয়ে কুমিল্লার দাউদকান্দি যাচ্ছেন ট্রাকচালক বেলায়েত হোসেন। তিনি গত সোমবার মালবাহী ট্রাক নিয়ে দৌলতদিয়া ঘাটে যান পদ্মা পার হওয়ার জন্য। সেখানে সিরিয়াল না পেয়ে মঙ্গলবার দুপুরে আলুর বাজার ফেরিঘাটে আসেন। আজ বুধবার দুপুর পর্যন্ত ফেরিতে উঠতে পারেননি তিনি।
বেলায়েত হোসেন বলেন, এক ঘাটে ফেরিতে উঠতে না পেরে আরেক ঘাটে এসেছেন। সেখানেও গাড়ির জট। কখন ফেরিতে উঠতে পারবেন, বুঝতে পাচ্ছেন না।

- Advertisement -spot_img

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

- Advertisement -spot_img

সর্বশেষ সংবাদ